মতিঝিল সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক বরখাস্ত:উত্তরবঙ্গ প্রতিদিন

উত্তরবঙ্গ প্রতিদিনে প্রকাশিত সংবাদটি শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  


স্টাফ রিপোর্টার,উত্তরবঙ্গ প্রতিদিন ::
দুর্নীতি দমন কমিশনের একটি দল সোমবার প্রতিষ্ঠানটিতে অভিযান চালিয়ে অভিযোগের সত্যতা পাওয়ার পর প্রধান শিক্ষকের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে সুপারিশ করলে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয় তাকে বরখাস্ত করে।
দুদকের জনসংযোগ কর্মকর্তা প্রণব কুমার ভট্টাচার্য্য বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন, ওই বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের ভর্তি বাবদ বেআইনিভাবে অর্থগ্রহণ ও হয়রানির বিষয়ে হটলাইনে অভিযোগ পেয়ে অভিযান চালানো হয়।

“দুদকের সহকারী পরিচালক নার্গিস সুলতানা ও উপ-সহকারী পরিচালক মো. সবুজ হাসানের সমন্বিত টিম অভিযানে গিয়ে জানতে পারে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক নূরজাহান হামিদা বাধ্যতামূলকভাবে বিনা রশিদে প্রতি শিক্ষার্থীর অভিভাবকদের কাছ থেকে এক থেকে দেড় হাজার টাকা করে নিচ্ছেন।

“এমনকি হতদরিদ্র ব্যক্তিদের সন্তানদেরও বিনামূল্যে ভর্তি করানো হয়নি, বরং তাদের সঙ্গে দুর্ব্যবহার করা হয়েছে।”

প্রণব বলেন, “এবছর শিক্ষার্থী ভর্তি বাবদ প্রধান শিক্ষক পাঁচ লাখ ৭৭ হাজার টাকা আদায় করেছেন। এসব টাকার কোনো হিসাব রাখা হয়নি। প্রধান শিক্ষক দুদক টিমের কাছে অবৈধ অর্থ আদায়ের অভিযোগ স্বীকার করেছেন।”

বিষয়টি দুদকের মহাপরিচালক (প্রশাসন) মোহাম্মদ মুনীর চৌধুরী তাৎক্ষণিকভাবে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়কে অবহিত করলে নূরজাহান হামিদাকে বরখাস্তের আদেশ জারি করে মন্ত্রণালয়।

এ বিষয়ে দুদকের মহাপরিচালক মুনীর চৌধুরী সাংবাদিকদের বলেন, বেআইনিভাবে আদায় করা অর্থ দ্রুত অভিভাবকদের ফেরত দিতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।


উত্তরবঙ্গ প্রতিদিনে প্রকাশিত সংবাদটি শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •