২৮ সেপ্টেম্বর, ২০২১
Home » Parallax Page » আজকের রাজশাহী » রাজশাহীতে যৌন হয়রানীর দায়ে অবশেষে সেই পুলিশ কনস্টেবল প্রত্যাহার:উত্তরবঙ্গ প্রতিদিন

রাজশাহীতে যৌন হয়রানীর দায়ে অবশেষে সেই পুলিশ কনস্টেবল প্রত্যাহার:উত্তরবঙ্গ প্রতিদিন

উত্তরবঙ্গ প্রতিদিনে প্রকাশিত সংবাদটি শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

স্টাফ রিপোর্টার,উত্তরবঙ্গ প্রতিদিন:: রাজশাহী নগরীতে রাতের বেলা এক নারীকে যৌন হয়রানীর অভিযোগে এক পুলিশ সদস্যকে পিটুনি দিয়েছে স্থানীয়রা। বৃহস্পতিবার রাত ১০ টার দিকে রাজশাহী মহানগরীর লক্ষীপুর কাঁচাবাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার পর নগরীর রাজপাড়া থানা পুলিশ তাকে আটক করে নিয়ে যায়। অভিযুক্ত পুলিশ কনস্টেবলের নাম সাব্বির হোসেন (৩০)। তিনি রাজশাহী মহানগর পুলিশের (আরএমপি) পবা থানায় কর্মরত ছিলেন। বৃহস্পতিবার রাতেই তাকে থানা থেকে প্রত্যাহার করে আরএমপির পুলিশ লাইনে রাখা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেয়ার প্রক্রিয়া শুরু করেছে আরএমপি।

স্থানীয় ও প্রত্যাক্ষদর্শীরা জানায়, সাব্বির হোসেন লক্ষীপুর কাঁচাবাজার এলাকায় একটি বাড়িতে পরিবার নিয়ে ভাড়া থাকেন। তিনি মাঝে মধ্যেই ঐ এলাকায় বসে আড্ডা দিতেন এবং নারীদের ইভটিজিং করতেন। বৃহস্পতিবার রাতে গরমের কারণে স্থানীয় এক নারী ঐ এলাকায় হাঁটাহাঁটি করছিলেন। এসময় সাব্বির ঐ নারীর শরীরে হাত দেন এবং কটূক্তি করেন। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে ঐ নারী তাকে সেন্ডেল খুলে পেটান এবং চিৎকার শুরু করেন। আশপাশের লোকজন এগিয়ে আসলে পালিয়ে গিয়ে বাসায় ঢুকে যান সাব্বির। কিন্তু এলাকার লোকজন বাড়িটি ঘিরে ফেলেন। এ নিয়ে এলাকায় উত্তেজনা দেখা দেয়। খবর পেয়ে রাজপাড়া থানা পুলিশের একটি দল ঐ বাড়িতে গিয়ে কনস্টেবল সাব্বিরকে আটক করে থানায় নিয়ে যায়। স্থানীয়রা অভিযোগ করেছন, ঐ সময় সাব্বির মদ্যপ অবস্থায় ছিলো। এদিকে, সাব্বির মাদক সেবন করেছিলো কি না তা নিশ্চিত হতে ‘ডোপ টেস্ট’ করানোর উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

রাজশাহী মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত উপ কমিশনার গোলাম রুহুল কুদ্দুস বলেন, কনস্টেবল সাব্বিরের বিরুদ্ধে স্থানীয়দের পক্ষ থেকে একটি লিখিত অভিযোগ পাওয়া গেছে। তাকে থানা থেকে রাতেই প্রত্যাহার করা হয়েছে। এরপর তাকে পুলিশ লাইনে রাখা হয়েছে। তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে। সাব্বির মাদকাসক্ত ছিলো কিনা সেটি নিশ্চিত হবার জন্য ডোপ টেস্ট করানো হবে বলে জানান তিনি।

রাজপাড়া থানার ওসি শাহাদত হোসেন খান বলেন, কনস্টেবল সাব্বিরের বিরুদ্ধে বিভাগীয় মামলা দিয়ে পুলিশ লাইনে দেয়া হয়। মামলার তদন্ত করে তার ব্যাপারে কর্মকর্তারা পরবর্তি সিদ্ধান্ত নেবেন।


উত্তরবঙ্গ প্রতিদিনে প্রকাশিত সংবাদটি শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।