রাজশাহী মহানগরীতে ভ্রাম্যমাণ করোনা পরীক্ষায় আক্রান্তের হার ৯.৪

রাজশাহী মহানগরীতে ভ্রাম্যমাণ করোনা পরীক্ষায় আক্রান্তের হার ৯.৪

স্টাফ রিপোর্টার। উত্তরবঙ্গ প্রতিদিন ::রাজশাহী নগরে পাঁচটি ভ্রাম্যমাণ বুথে ফ্রি র‌্যানডম করোনা টেস্ট করা হয়েছে। এসময় ২৮৫ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ২৭ জন পজেটিভ এসেছে। ৯ দশমিক ৪৭ শতাংশ। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন- রাজশাহী সিভিল সার্জন কাইউম তালুকদার।

রোববার (৬ জুন) সকাল ১০ টায় এক যোগে রাজশাহী নগরীর পাঁচটি গুরুত্বপূর্ণ মোড়ে ফ্রি র‌্যানডম করোনা টেস্ট করা হয়। চলে দুপুর একটা পর্যন্ত। এসময় বুধগুলোতে সাধারণ মানুষ করোনা পরীক্ষা করেছেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে- রাজশাহী মহানগরীর সাহেববাজারে ৮৪ টি নমুনা পরীক্ষা করা হয়। এতে ৬ জনের করোনা পজেটিভ আসে। নগরীর হড়গ্রাম বাজারে ৩৩ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ৫ জনের করোনা পজেটিভ, এছাড়া সিএন্ডবি মোড়ে ৫৪ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ৩ জনের করোনা পজেটিভ, লক্ষ্মীপুর মোড়ে ৫০ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ৮ জনের করোনা পজেটিভ, তালাইমারী এলাকায় ৬৪ জনের নমুনা পরীক্ষায় ৫ জনের করোনা পজেটিভ এসেছে। সেই তুলনায় সংক্রমণের দিক থেকে এগিয়ে নগরীর লক্ষ্মীপুর এলাকা।
এর আগে রাজশাহীতে জনসাধারণের মাঝে ভ্রাম্যমাণ ফ্রি করোনা টেস্ট কার্যক্রম শুরু হয়েছে।

রাজশাহী জেলা প্রশাসকের উদ্যোগে নগরীর বিভিন্ন পয়েন্টে পাঁচটি ক্যাম্পেইন ভ্রাম্যমাণ টেস্ট করা হয়েছে। সকালে জিরোপয়েন্টে রাজশাহী সিভিল সার্জন অফিসের একটি টিম ফ্রি করোনা টেস্ট কার্যক্রম শুরু করে। এ সময় উপস্থিত ছিলেন, রাজশাহী পুলিশ কমিশনার আবু কালাম সিদ্দিক, রাজশাহী সিভিল সার্জন কাউয়ুম তালুকদারসহ স্বাস্থকর্মীরা।

এসময় পুলিশ কমিশনার আবু কালাম সিদ্দিক জানান, আমরা ফ্রি ক্যাম্পেইন করছি। এর মাধ্যমে জানতে পারবো নতুন করে রাজশাহীতে করোনার ভেরিয়েন্ট কতটুকু আছে। সারা বাংলাদেশ রাজশাহীকে নিয়ে আতঙ্কিত। রাজশাহী নগরীর পাঁচটি পয়েন্টে টেস্ট করা হচ্ছে, সকলকে আহবান জানাচ্ছি টেস্ট করার জন্য। আজ টেস্টের বেশিরভাগ নেগেটিভ এসেছে। আমরা আশাবাদী জনগণ স্বাস্থ্যবিধি মানলে আমরা করোনা প্রতিরোধ করেত পারবো।

সিভিল সার্জন কাউয়ুম তালুকদার জানান, আমাদের পাঁচটি টিম নগরীর বিভিন্ন পয়েন্টে করোনার টেস্ট করছে। সকল পয়েন্টে মোট এক হাজার ২০০ টেস্ট করা যাবে। রাজশাহীতে কী পরিমাণ সংক্রমণ আছে সেটাই দেখাতে এই কার্যক্রম করছি। সাধারণ মানুষের মাঝে সংক্রমণ কতটা ছড়িয়ে গেছে তার বিষয়ে আমরা ধারণা পাবো।

এদিক জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে বলা হচ্ছে মূলত জনসাধারণের মাঝে এই করোনা টেস্ট করে তার রির্পোট দেখার পরেই সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে রাজশাহীর লকডাউনের বিষয়ে।

সংবাদটি শেয়ার করুন-
  • 323
  • 209
  • 188
  • 120
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    840
    Shares

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না।